গ্রীক দেবতা ও দেবীদের সম্পর্কে ১০টি চাঞ্চল্যকর তথ্য!

by
Apr 28, 2017
124 Views
Comments Off on গ্রীক দেবতা ও দেবীদের সম্পর্কে ১০টি চাঞ্চল্যকর তথ্য!
0 0

গ্রিক মিথলজির সাথে আমরা সবাই পরিচিত। এ পুরাণে রয়েছে অসংখ্য দেবদেবী ও বীরযোদ্ধার কাহিনী, যেগুলোর কোন বাস্তব ভিত্তি নেই। তবু প্রাচীন গ্রিসের ধর্মীয়, রাজনৈতিক ও সামাজিক ব্যবস্থাকে বোঝার জন্য কাহিনীগুলো বেশ সহায়ক।


১। জিউস শুধু দেবতাদের রাজা নন। গ্রিক মিথলজিতে আকাশের দায়িত্বও রয়েছে তার কাছে। বজ্রপাতকে প্রায় সময় তিনি অস্ত্র হিসাবে ব্যবহার করে থাকেন।

২। অলিম্পাস পর্বতের সিংহাসন থেকে দেবতা ও মানুষকে শাসন করেন জিউস।

৩। শাসক হিসাবে তার সুনাম থাকলেও স্বামী ও প্রেমিক হিসাবে বিশ্বস্ত ছিলেন না জিউস। তাই তার বংশধরেরাও বহু জায়গায় ছড়িয়ে ছিটিয়ে ছিলো। এদের মধ্যে দুই বিখ্যাত বীর হলেন হেরাকলস ও পার্সিয়াস। এদের কারো জন্ম জিউসের স্ত্রী হেরার গর্ভে হয় নি।

৪। সময়ের দেবতার নাম ক্রনোস!

৫। সমুদ্রের দেবতার নাম পসাইডন!

৬। ঘুমের দেবতা হিপনোস!

৭। সৌন্দর্য্যের দেবী আফ্রোদিতি!

৮। যুদ্ধের দেবতা অ্যারিস!

৯। ভালবাসারা দেবতা ইরোস!

১০। জ্ঞানের দেবী অ্যাথিনা!

১১। দিনের দেবী ইমেরা এবং রাতের দেবী নিক্স!

মূলত বাবা ক্রোনাসের বিরুদ্ধে যুদ্ধ করে জিউস নিজের নিয়ন্ত্রণ প্রতিষ্ঠা করেন। তার বাবাকে অবশ্য আদর্শ বাবা বলা যাবে না। নিজের অন্য সন্তানদেরকে খেয়ে ফেলেছিলেন ক্রোনাস। ক্ষমতা ধরে রাখাই ছিলো এমন অকাজের উদ্দেশ্য। তবে শেষ রক্ষা হয় নি। জিউসের মা রেয়া তার জন্মের পর এক টুকরো পাথরকে কাপড় দিয়ে পেঁচিয়ে স্বামীর হাতে তুলে দেন। যথারীতি সেটা পেটে চালান করে দেন টাইটান দেবতা ক্রোনাস। ফলে বেঁচে যান দেবতাদের ভবিষ্যৎ রাজা। পরবর্তীতে বাবার পেট থেকে নিজের ভাইবোনকে উদ্ধার করেন তিনি।


তথ্যসূত্রঃ www.quizards.co

Article Categories:
সেরা দশ